সততাই সর্বোৎকৃষ্ট নীতি | ভাব সম্প্রসারণ

সততাই সর্বোৎকৃষ্ট নীতি

সততাই সর্বোৎকৃষ্ট নীতি | ভাব সম্প্রসারণ

মূলভাব : মানুষের জীবনে সততার মূল্য অপরিসীম । সততার পথ ছাড়া জীবনে অন্য কোনো অবলম্বন করা মোটেই কাম্য নয় ।

সম্প্রসারিত ভাব : জীবন পরিচালনায় সৎ - অসৎ নানা পথ রয়েছে । মনুষ্যত্বের দাবি সততার পথে অবিচল থাকা । অসততায় মনুষ্যত্ব ভূলুণ্ঠিত হয় , জীবনের তাৎপর্য হারায় । এ কথা সত্য , সমাজে ন্যায় - অন্যায় , সততা - অসততার দ্বন্দ্বে সব সময় ন্যায় ও সততার জয় হয় না । অনেক সময় অসৎ মানুষেরাই সাফল্যের শীর্ষে পৌছে । আমাদের সমাজে অসৎ মানুষেরাই অধিকাংশ ক্ষেত্রে সফল মানুষরূপে চিহ্নিত । তারাই দেশ , জাতি , সমাজ , প্রশাসনসহ সর্বক্ষেত্রে নেতৃত্বের আসন দখল করে আছে । অনৈতিক ও অসততার এ সাফল্য দেখে সততার মূল্য সম্পর্কে সন্ধিহান হওয়া নেহাৎ বোকামি ছাড়া আর কিছুই নয় । কারণ অসততার সাফল্য চূড়ান্তভাবে টেকে না , সততাই ধ্রুব হয়ে টিকে থাকে । সততাকে আশ্রয় করে জীবন পরিচালনা করতে গিয়ে সাময়িক সাফল্য অর্জিত না হলেও হতাশ হবার কিছু নেই । সততা কোনো আপেক্ষিক কিংবা পরিবর্তনশীল বিষয় নয় । সততা কেবল মুখের বুলিও নয় । সততাকে আংশিক গ্রহণ বা বর্জন করার উপায় নেই । একজন মানুষকে জীবনের প্রতি পদক্ষেপে সচেতন থাকতে হয় কিছুতেই যাতে তার স্খলন না আসে । কথায় ও কাজে সামঞ্জস্য রক্ষা করে জীবনকে সত্য ও নৈতিক আদর্শের আলোয় উদ্ভাসিত করাই মানবতার দাবি । যেকোনো ধরনের পার্থিব লোভ ও প্রবৃত্তির তাড়না যাতে সততাকে কেড়ে নিতে পারে সেজন্য সতর্ক থাকা সকলেরই কর্তব্য । কতত সততার লালন রীতিমতো সাধনার বিষয় । এ সাধনাই জীবন সাধনার মূল প্রেরণা হওয়া উচিত । সত্য ব্যক্তি সকলের দ্বারা সম্মানিত হন । তিনি বিবেকের কাছে পরিপূর্ণ থাকেন , স্রষ্টার করুণা লাভে হন ধন্য । পক্ষান্তরে অসৎ ব্যক্তি সর্বজন দ্বারা ঘৃণিত এবং স্রষ্টার কাছে অভিসম্পাতিত হয় । সেজন্যই ইংরেজিতে একটি কথা আছে , “ Honesty is the best policy ” বা “ সততাই সর্বোৎকৃষ্ট নীতি । ” আমাদের প্রত্যেকের জীবনে একথার রূপায়ণ থাকা আবশ্যক ।

মন্তব্য: জীবনে সৎ থাকতে গেলে আসবে দুঃখ কষ্টের বাঁধা । কিন্তু এসব দুঃখ কষ্টকে বাঁধা হিসেবে না মেনে , সত্যের পথ পরিত্যাগ না করে কর্মক্ষেত্রে অগ্রসর হওয়া উচিত ।

ভিডিও দেখুন



আরো পড়ুন:
পরবর্তী পোস্ট পূর্ববর্তী পোস্ট
No Comment
আপনার মন্তব্য জানান
comment url