ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র বালুকণা বিন্দু বিন্দু জল, গড়ে তোলে মহাদেশ সাগর অতল | ভাব সম্প্রসারণ

ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র বালুকণা বিন্দু বিন্দু জল,
গড়ে তোলে মহাদেশ সাগর অতল।

ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র বালুকণা বিন্দু বিন্দু জল, গড়ে তোলে মহাদেশ সাগর অতল | ভাব সম্প্রসারণ

মূলভাব : পৃথিবীতে কোনোকিছুই তুচ্ছ বা ফেলনা নয় । ক্ষুদ্র বলে কোনোকিছুকে অবহেলা করা উচিত নয় । কেননা , সমগ্র সৃষ্টিজগৎ গড়ে উঠেছে অতিক্ষুদ্র বস্তুকণার সমন্বয়ে ।

সম্প্রসারিত ভাব : ছোট থেকেই বৃহতের সৃষ্টি । ছোট ছোট দুঃখ - কথা থেকেই বৃহৎ অশান্তি অবলীলায় পরিবারকে অশান্ত করে তোলে । তাই জগৎ সংসারে ক্ষুদ্রাতি - ক্ষুদ্র কোনো বিষয়কেই তুচ্ছ করা সমীচীন নয় । কেননা পৃথিবীতে কোনো বস্তুই তুচ্ছ বা হেয় নয় । প্রত্যেকটি বস্তুর কমবেশি গুরুত্ব আছে । পৃথিবীর কোনো বস্তুকেই ক্ষুদ্র মনে করে অবজ্ঞা করা উচিত নয় । কারণ বহু ক্ষুদ্রের সমন্বয়ে সৃষ্টি হয় বৃহৎ । আপাতদৃষ্টিতে আমরা সাধারণত একটি ক্ষুদ্র বালুকণা বা একবিন্দু পানির কোনো গুরুত্ব দেই না । কিন্তু আমাদের ভুললে চলবে না যে , বহু বছর ধরে কোটি কোটি বালুকণা প্রতিমুহূর্তে সজ্জিত হয়ে বিশাল ভূভাগ গড়ে উঠেছে । ঠিক তেমনি ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র জলবিন্দুর সমন্বয়ে সৃষ্টি হয় সাগর বা মহাসাগর । কাজেই আমাদের জীবনে প্রতিনিয়ত অসংখ্য ক্ষুদ্রকে সাথে নিয়ে এগিয়ে যেতে হয় । সেসব ক্ষুদ্রকে অবহেলা করে আমরা তার অপচয় করি । ফলে আমাদের জীবনসাধনা ব্যর্থতায় পর্যবসিত হয় । আমরা আমাদের ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র জ্ঞান , দয়া , মমতা , প্রচেষ্টা , ক্ষমতা প্রভৃতির সমন্বয়ে জীবনকে সাফল্যমণ্ডিত করে তুলতে পারি। আমরা অনেক সময় ছোটখাটো কথা বা উপদেশকে মূল্য দেই না । সামান্য কথা হলেও তা জীবনের বৃহত্তর পরিসরে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে । সামান্য বলে অনেক ' সময় ' ও ' অর্থ ' - কে আমরা আমল দেই না । অথচ অবহেলায় ফেলে যাওয়া সামান্য ' সময় ' বা ' অর্থ ' একসাথে করলে জীবনের জন্যে অনেক কিছুই করা সম্ভব হতো । তাই জীবনে সঞ্চয়ের ক্ষেত্রে ‘ ক্ষুদ্র ' কথাটি যথেষ্ট গুরুত্ব বহন করে ।

মন্তব্য : পৃথিবীতে কোনো বস্তুকে ক্ষুদ্র বলে অবজ্ঞা করা উচিত নয় । কারণ বহু ক্ষুদ্রের সমন্বয়ে সৃষ্টি হয় বৃহৎ কোনো কিছু ।

ভিডিও দেখুন



আরো পড়ুন:
পরবর্তী পোস্ট পূর্ববর্তী পোস্ট
No Comment
আপনার মন্তব্য জানান
comment url